Friday, September 17, 2021
Homeসরকারি স্কিমRupashree Prakalpa | রূপশ্রী প্রকল্প

Rupashree Prakalpa | রূপশ্রী প্রকল্প

Rupashree Prakalpa | রূপশ্রী প্রকল্প – পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকারের 2018-19 অর্থনৈতিক বছরের বাজেট ঘোষণায় 31 শে জানুয়ারি 2018 তারিখে মাননীয় অর্থমন্ত্রী ঘোষণা করেন যে অর্থনৈতিক ভাবে চাপে পড়া পরিবারের জন্য এককালীন আর্থিক অনুদান 25 হাজার টাকা দেওয়া হবে তাদের কন্যা সন্তানের বিবাহের জন্য।

এই এককালীন অনুদান কন্যা সন্তানের বিবাহের জন্য “রূপশ্রী প্রকল্প” নামে স্কিমের অধীনে দেওয়া হবে। গ্রামবাংলায় প্রায়শই দেখা যায় যে দরিদ্র পরিবারগুলোকে তাদের কন্যাসন্তানের বিয়ের জন্য টাকা ধার করতে হয় যা অনেক সময় তারা চড়া সুদে নিয়ে থাকে।

রূপশ্রী প্রকল্প ১লা এপ্রিল ২০১৮ থেকে কার্যকর হবে এবং তারপরের সমস্ত বিয়েতে এই প্রকল্পের সুবিধা নেওয়ার জন্য আবেদনকারী আবেদন করতে পারেন। এই প্রকল্পটি পশ্চিমবঙ্গের সমস্ত জেলার জন্য কার্যকর।

যোগ্যতার মানদণ্ড

এই রূপশ্রী প্রকল্প টিতে যেকোনো অবিবাহিত মেয়ে আবেদন করতে পারেন যদি সে বিবাহের জন্য প্রস্তুত হয়ে থাকে। তবে তার ক্ষেত্রে নিম্নলিখিত মানদন্ড গুলি প্রযোজ্য হবে:

  • আবেদনকারীর নূন্যতম বয়স 18 বছর হতে হবে।
  • তার আবেদন পত্র জমা দেওয়া তারিখে তাকে অবহিত হতে হবে।
  • প্রস্তাবিত বিবাহ তার প্রথম বিবাহ হতে হবে।
  • আবেদনকারীকে পশ্চিমবঙ্গে জন্মগ্রহণ করতে হবে বা বিগত পাঁচ বছর ধরে পশ্চিমবঙ্গের বাসিন্দা হয়ে আছেন অথবা তার বাবা-মা পশ্চিমবঙ্গের স্থায়ী বাসিন্দা।
  • আবেদনকারীর পারিবারিক উপার্জন বছরে দেড় লক্ষ টাকার বেশি হওয়া যাবে না।
  • আবেদনকারীর সম্ভাব্য বরের বয়স ন্যূনতম একুশ বছর যেন হয়।
  • তার একটি সক্রিয় অ্যাকাউন্ট রয়েছে যে তাদের তিনি একমাত্র অ্যাকাউন্ট ধধারক। ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট অবশ্যই এমন ব্যাংকে থাকতে হবে যার একটি আইএফএসসি কোড এবং একটি এমআইসিআর কোড রয়েছে এবং NEFT এর মাধ্যমে টাকা ট্রান্সফার সম্ভব।

DOWNLOAD RUPASHREE FORM

প্রকল্পের আবেদন এর পদ্ধতি

এই প্রকল্পের আবেদন ফর্মটি নিখরচায় নিম্নলিখিত অফিসগুলোতে উপলভ্য হবে:

  • ব্লক উন্নয়ন অফিসের কার্যালয় যদি আবেদনকারী গ্রামীণ এলাকা থেকে হয়ে থাকেন।
  • মহকুমা অফিসের কার্যালয় থেকে যদি আবেদনকারী ব্যক্তি পৌরসভা এলাকা থেকে হয়ে থাকেন।
  • পৌর কমিশনার অফিস থেকে যদি আবেদনকারী ব্যাক্তি পৌর কর্পোরেশন এলাকা থেকে হয়ে থাকেন, যেমন কলকাতা পৌর কর্পোরেশন।

আবেদনপত্রের সাথে যে সমস্ত নথি/ শংসাপত্র জমা দিতে হবে

রূপশ্রী প্রকল্প এর আবেদন এর সময় আবেদনকারীকে আবেদন পত্রের সাথে যে সমস্ত সংস্থা পত্র জমা দিতে হবে তা নিম্নলিখিত:

  • আবেদনকারীর বয়সের প্রমাণপত্র: নিচের যেকোনো একটি স্ব-প্রত্যয়িত ফটোকপি জমা দিতে হবে। জন্ম শংসাপত্র/ ভোটার আইডি কার্ড/ প্যান কার্ড /মাধ্যমিক প্রবেশপত্র/ আধার কার্ড/ সরকারি স্কুল ছাড়ার শংসাপত্র।
  • অবিবাহিতা বলে নিজস্ব ঘোষণাপত্র দিতে হবে।
  • পারিবারিক আয়ের এর নিজস্ব ঘোষণাপত্র।
  • আবাসের প্রমাণ: নিজস্ব ঘোষণাপত্র।
  • ব্যাংক অ্যাকাউন্ট: ব্যাংক বইয়ের পৃষ্ঠার ফটোকপি যা ব্যাংকের অ্যাকাউন্ট ধারীর নাম, অ্যাকাউন্ট নম্বর, ব্যাংকের ঠিকানা, আই এফ এস সি কোড , এম আই সি আর কোড ও অন্যান্য বিবরণ থাকবে। ফটোকপি টি স্ব-প্রত্যয়িত করে দিতে হবে।
  • প্রস্তাবিত বিয়ের প্রমাণপত্র: বিবাহের আমন্ত্রণ কার্ড/ বিবাহ রেজিস্ট্রেশন এর নোটিশ / নিজস্ব ঘোষণাপত্র।
  • সম্ভাব্য বরের বয়সের প্রমাণপত্র:নিচের যেকোনো একটি স্ব-প্রত্যয়িত ফটোকপি জমা দিতে হবে। জন্ম শংসাপত্র/ ভোটার আইডি কার্ড/ প্যান কার্ড /মাধ্যমিক প্রবেশপত্র/ আধার কার্ড/ সরকারি স্কুল ছাড়ার শংসাপত্র।
  • আবেদনকারী এবং সম্ভাব্য বরের রঙিন পাসপোর্ট আকারের ছবি।

অন্যান্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্রসহ সম্পূর্ণ আবেদনপত্র এবং শংসাপত্র গুলি অবশ্যই ব্লক ডেভেলপমেন্ট অফিস এর কার্যালয় গ্রামীণ এলাকা হলে, নগর এলাকা হলে মহকুমা কার্যালয় অফিস ও পৌর কর্পোরেশনের অধীনে বলে কমিশনারের কার্যালয় অফিসে জমা দিতে হবে।

আবেদনকারীকে প্রস্তাবিত বিবাহের ৬০ দিনের বেশি আগে নয় ও ৩০ দিনের কম আগে নয়, এরকম সময়ে আবেদনপত্র জমা দিতে হবে।

আরও পড়ুন – কন্যাশ্রী প্রকল্প | Kanyashree Prakalpa in bengali

রূপশ্রী প্রকল্প এর টাকা কিভাবে পাবেন

আবেদনকারীর ব্যাংক অ্যাকাউন্টে সরাসরি এই টাকা NEDT এর মাধ্যমে ট্রান্সফার করা হবে।

আবেদন পত্র কোথা থেকে পাওয়া যাবে

আবেদনপত্র গুলি সমস্ত ব্লক মহাকুমা পৌর কর্পোরেশন অফিস থেকে সারা বছর বিনামূল্যে পাওয়া যাবে। এছাড়া এটি আপনি http://www.wbcdwdsw.gov.in ওয়েবসাইট থেকে ডাউনলোড করে নিতে পারেন।

আবেদনপত্র জমা ও নিবন্ধন

প্রতিটি ব্লক /এসডিও অফিস/ পৌর কর্পোরেশন অফিস একটি রুপোর রেজিস্টার রক্ষণাবেক্ষণ করবে এবং আবেদন প্রাপ্তির পরে গ্রাহক কর্মকর্তা এ বিষয়টি গ্রহণ করবেন:

  • রূপশ্রী রেজিস্টারে একটি অ্যাপ্লিকেশন নাম্বার জেনারেট করবেন (তিন অঙ্কের চলমান সিরিয়াল নাম্বার/ আর্থিক বছর)। “for official use” এর সমস্ত বিভাগ পূরণ করে দেবে।
  • আবেদনপত্রের সমস্ত ক্ষেত্র রয়েছে কিনা তা প্রাথমিকভাবে যাচাই করা। আবেদনপত্রটি সঠিকভাবে পূরণ করা হয়েছে কিনা এবং সমস্ত প্রয়োজনীয় নথি স্বাক্ষরিত এবং সংযুক্ত আছে কিনা তা খতিয়ে দেখা।
  • যদি আবেদনপত্রটি সমস্ত ক্ষেত্রে সম্পূর্ণ হয় এবং প্রয়োজনীয় সমস্ত নথি সংযুক্ত থাকে তবে গ্রহীতা অফিসার রূপশ্রী রেজিস্টারে আবেদনপত্র টিকে স্বীকৃতি হিসেবে চিহ্নিত করবেন। এবং যথাযথভাবে স্বাক্ষরিত করে আবেদনকারীকে একটি স্বীকৃতি স্লিপ দেবেন।
  • যদি আবেদনপত্রটি অসম্পূর্ণ থাকে বা শংসাপত্র অপর্যাপ্ত থাকে তাহলে প্রাপক কর্মকর্তা তার রূপশ্রী রেজিস্টারে রিটার্ন বলে চিহ্নিত করবেন এবং স্বীকৃতি স্লিপে আবেদনপত্রটি ফেরত যাওয়ার কারণ গুলি উল্লেখ করবেন।

আবেদনের যাচাইকরণ ও তদন্ত রিপোর্ট

প্রতিটি আবেদন একটি তদন্তকারী অফিসার কে অর্পণ করা হবে যিনি ক্ষেত্র যাচাইকরণ ও পরিচালনা করবেন এবং পরিশেষে একটি তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেবেন।

  • গ্রামাঞ্চলে ক্ষেত্রে ভিডিওর একজন এক্সটেনশন অফিসার তদন্ত কর্মকর্তা হবেন। এবং কার্যনির্বাহী সহকারী / সচিবের সাথে যৌথভাবে তদন্ত পরিচালনা করবেন, সংশ্লিষ্ট গ্রাম পঞ্চায়েত যেখানে আবেদনকারী থাকেন সেখানে তারা যৌথভাবে দর্শন করবে আবেদনকারীর বাসভবন এবং সম্ভাব্য বিবাহ সম্পর্কে জিজ্ঞাসা করবেন। যার জন্য সহায়তা হিসেবে তারা স্থানীয় বাসিন্দা / প্রতিবেশীদের সাথে কথা বলে তথ্য সংগ্রহ করবেন, আবেদনকারীর দাবিকে সমর্থন / অস্বীকার করে এরকম পাঁচ জন ব্যক্তির স্বাক্ষর নেবেন।
  • আবেদনকারী যদি কোনও পৌরসভার বাসিন্দা হন তবে অনুরূপ তদন্ত করা হবে, উপ-বিভাগ বা পৌরসভার দু’জন কর্মকর্তা এসডিওর তত্ত্বাবধানে এই অনুসন্ধান করবেন।
  • আবেদনকারী কোনও পৌর কর্পোরেশনের বাসিন্দা হলে অনুরূপ তদন্ত করা হবে, এর তত্ত্বাবধানে পৌর কর্পোরেশনের দুই কর্মকর্তার মাধ্যমে কমিশনার এই কাজটি সম্পূর্ণ করাবেন।

আবেদন অনুমোদন /প্রত্যাখ্যান

অনুমোদনকারী অফিসার বিডিও /এসডিও/ কমিশনার যে সমস্ত আবেদন পত্র সাফল্যের সাথে যাচাই করা হয়েছে তা মঞ্জুর করবেন। এবং যাদের নেতিবাচক প্রতিবেদন আছে বা অযোগ্য বলে বিবেচিত হয়েছে তাদের আবেদনপত্র প্রত্যাখ্যান করা হবে। যাদের আবেদন বাতিল হয়েছে সেই আবেদনকারীকে এজাতীয় প্রত্যাখ্যান সম্পর্কে অবহিত করা হবে।

মঞ্জুর হওয়া আবেদনকারীর ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে সরাসরি টাকা ট্রান্সফার

বিতরণকারী কর্মকর্তা তহবিলের প্রাপ্যতার ভিত্তিতে অনুমোদিত অনুদান IFMS এর মাধ্যমে সরাসরি সুবিধাভোগীর ব্যাংক একাউন্টে টাকা ট্রান্সফার করবেন। এই টাকা কমপক্ষে প্রস্তাবিত বিবাহের 5 দিন আগে আবেদনকারীর একাউন্টে পৌছে যাবে।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular